আ.লীগ অখুশি নয় পুরোপুরি খুশিও নয়: কাদের

২১ আগস্ট আওয়ামী লীগের মহাসমাবেশে গ্রেনেড হামলার ঘটনায় মতিঝিল থানায় করা হত্যা মামলায় সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল। এছাড়া বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবনের আদেশ দেয়া হয়েছে।

ওই রায়ের পর তাৎক্ষণিক এক প্রতিক্রিয়ায় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এ রায়ে আওয়ামী লীগ অখুশি নয় কিন্তু পুরোপুরি খুশিও নয়। দেরিতে হলেও এ রায়ে আওয়ামী লীগ অখুশি নয়, পুরোপুরি বিরক্তও নয়।’

কারণ ব্যাখ্যা করে তিনি বলেন, ‘সবাই জানে ওই হামলার মাস্টারমাইন্ড কে, তারেক রহমান। যেটা মুফতি হান্নানও স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে বলে গেছেন। তার যেহেতু ফাঁসি হয়নি কিন্তু হওয়া উচিত ছিল।’

বুধবার দুপুরে রাজধানীর আন্তর্জাতিক এক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত চুক্তি সম্পাদন শেষে এমন মন্তব্য করেন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

২০০৪ সালের ২১ আগস্ট আওয়ামী লীগের মহাসমাবেশে গ্রেনেড হামলার ঘটনায় মতিঝিল থানায় করা হত্যা মামলায় সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল। এ ছাড়া বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবনের আদেশ দেয়া হয়েছে।

বুধবার (১০ অক্টোবর) সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারের পাশে অবস্থিত ঢাকার ১নং অস্থায়ী দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক শাহেদ নুর উদ্দিন এ রায় ঘোষণা করেন।

পরে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মোশাররফ হোসেন কাজল আদালত প্রাঙ্গণে উপস্থিত সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, আমরা এ রায়ে শুকরিয়া প্রকাশ করছি। তবে তারেক রহমানের যাবজ্জীবন রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে কিনা- সে বিষয়ে সিনিয়রদের সঙ্গে পরামর্শ করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আলোচিত এ মামলায় ৫১১ সাক্ষীর মধ্যে ২২৫ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়। এ ছাড়া আরও ২০ জনের সাফাই সাক্ষ্য নেয়া হয়েছে।

এফএম/টিবি/১৮

কমেন্ট করে সাথেই থাকুন